অগ্নিপথ স্কিম 2023: সেনাতে চাকরি বেতন ৬.৯ লক্ষ টাকা (Agneepath Scheme in Bengali)

Agneepath Scheme 2023: অগ্নিপথ স্কিম কি? অগ্নিপথ যোজনা কাদের জন্য? কত টাকা বেতন দেওয়া হবে এই অগ্নিপথ যোজনা তে? জানুন অগ্নিপথ যোজনার সমস্ত তথ্য (Agneepath Recruitment Scheme 2023)

দেশের জন্য কিছু করার স্বপ্ন প্রায় অনেক যুবকদেরই থাকে। তবে অনেক সময় দেখা যায় পরিবারের পিছুটান এবং অনেকটা বেশি সময় সাপেক্ষ হয়ে যায় বলে, এই চাকরি থেকে অনেকেই সরে আসেন। তবে অগ্নিপথ স্কিম আপনাকে একটা সুবর্ণ সুযোগ দিয়েছে। বছরে ৬.৯ লাখ প্যাকেজের সাথে মহিলারাও হতে পারবেন অগ্নিবীর।

যেখানে খুবই কম সময়ের জন্য চাকরি পাবেন আর তার সাথে দেশের সেবা করার স্বপ্নটাও পূরণ করতে পারবেন। তার পাশাপাশি বছরে ভালোমতো স্যালারি প্যাকেজ পাবেন। এছাড়া মনে করলে চার বছর পরও আপনার চাকরি জারি রাখতে পারেন।

Agneepath Scheme 2022: অগ্নিপথ স্কিম সেনাতে চাকরি বেতন ৬.৯ লক্ষ টাকা
Agneepath Scheme 2023: অগ্নিপথ স্কিম সেনাতে চাকরি বেতন ৬.৯ লক্ষ টাকা

তিনজন প্রসিদ্ধ সেনা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে এই যোজনার প্রেজেন্টেশনও দিয়েছিলেন। এই যোজনার ক্ষেত্রে সেনাতে যুবকরা খুবই কম সময়ের জন্য ভর্তি হতে পারবেন।

এই যোজনা কে অগ্নিপথ স্কিম (Agneepath Scheme) নাম দেওয়া হয়েছে এর মধ্যে দিয়ে যুবক ছেলেরা চার বছরের জন্য সেনাতে শামিল হতে পারবেন আর দেশের সেবা করতে পারবেন।

প্রকল্পের নামঅগ্নিপথ যোজনা স্কিম, ভারত
পরিচালিতভারত সরকারের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়।
আবেদনকারীভারতের যুব (পুরুষ ও মহিলা)
শুরু করেছেনপ্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী
উদ্দেশ্যযুবকদের সশস্ত্র বাহিনীতে অগ্নিবীর হিসেবে কাজ করার সুযোগ দেওয়া।
সেবা এলাকাভারতীয় সেনাবাহিনী, ভারতীয় নৌবাহিনী, ভারতীয় বিমান বাহিনী
সেবার সময়4 বছর
বয়স সীমা17 1/2 -23 বছর
আবেদন প্রক্রিয়াঅনলাইন/অফলাইন

রক্ষা মন্ত্রি রাজনাথ সিংহ সেনাতে ভর্তি হওয়ার প্রক্রিয়া তে অনেকখানি পরিবর্তন করার জন্য অগ্নিপথ ভর্তি যোজনা (Agneepath Recruitment Scheme) এর ঘোষণা করেছেন। রাজনাথ সিংহ বলেছেন যে, অগ্নিপথ ভর্তি যোজনা তে সেনাতে চার বছরের জন্য যুবকরা ভর্তি হতে পারবেন অথবা তাদেরকে ভর্তি করা হবে।

আগ্নিপথ যোজনার উদ্দেশ্য, নিযুক্তি ও পরিকল্পনা
আগ্নিপথ যোজনার উদ্দেশ্য, নিযুক্তি ও পরিকল্পনা

এর সাথে সাথে চাকরি থেকে অবসর নেওয়ার সময় সেবা নিধির প্যাকেজ দেওয়া হবে। এই যোজনা অনুসারে সেনাদের শামিল হওয়া যুবকদের অগ্নিবীর নামে জানা যাবে।

অগ্নিপথ যোজনার কিছু বিশেষ কথা: 

  • যুবকদের চার বছরের জন্য সেনাতে ভর্তি করানো হবে।
  • এর মধ্যে দিয়ে অগ্নি বীরদের বেশ আকর্ষণীয় বেতন দেওয়া হবে।
  • সেনাতে চার বছরের চাকরির পর যুবকদের ভবিষ্যতের জন্য আর অবসর দেওয়া হবে।
  • চার বছরের চাকরির পরে সেবা নিধি প্যাকেজ পাবেন তারা।
  • এই যোজনা অনুসারে ভর্তি করা বেশিরভাগ জওয়ান দের চার বছর পর সম্পূর্ণরূপে মুক্ত করা হবে।
  • এছাড়া কিছু জওয়ান যদি মনে করেন তাহলে তাদের চাকরি জারি রাখতে পারেন।
  • ১৭.৫ বছর থেকে ২১ বছরের যুবক দের এই সুবর্ণ সুযোগ দেওয়া হবে।
  • ট্রেনিং ১০ সপ্তাহ থেকে ৬ মাস পর্যন্ত হবে।
  • মাধ্যমিক / উচ্চ মাধ্যমিকের ছাত্র রা করতে পারবেন এই চাকরির জন্য আবেদন।
  • ৯০ দিন পর্যন্ত অগ্নিবীর দের প্রথম ভর্তি হবে।
  • যদি কোন অগ্নিবীর দেশ সেবা করার সময়কালে শহীদ হয়ে যান, তাহলে সেই বীর এর পরিবার পরিজন সেবা নিধি সমেত এক কোটি টাকারও বেশি টাকা পাবেন।
  • এছাড়াও চাকরির যে দিনগুলো বেঁচে থাকবে তার বেতন ও দেওয়া হবে।
  • আবার যদি কোন অগ্নিবীর গুরুতর আহত হয়ে অক্ষম হয়ে পড়েন, তাহলে তাকে ৪৪ লাখ টাকা পর্যন্ত দেওয়া হবে।
  • এছাড়াও চাকরির যে দিনগুলি বেঁচে থাকবে তার বেতন ও দেওয়া হবে।
  • সম্পূর্ণ দেশে মেরিট এর আধারের উপরে ভর্তি করানো হবে।
  • যারা এই ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হবেন তাদের চার বছরের জন্য এই চাকরি দেওয়া হবে।

#Agnipath योजना सभी अग्निवीरों को ₹ 30,000 प्रति माह और चौथे वर्ष में ₹40,000 प्रति माह तक का आकर्षक मासिक पैकेज प्रदान करेगी,

4 साल पूरे होने पर सभी उम्मीदवारों के लिए एक समग्र वित्तीय पैकेज, ‘सेवा निधि’ का भी प्रावधान है। pic.twitter.com/TC9bXcz13a

— पीआईबी हिंदी (@PIBHindi) June 14, 2023

কত টাকা বেতন পাওয়া যেতে পারে: 

রক্ষা মন্ত্রণালয় অনুসারে অগ্নিপথ যোজনার ক্ষেত্রে যুবকদের প্রথম বছর ৪.৭৬ লাখ টাকার এক বছরের প্যাকেজ দেওয়া হবে আর চতুর্থ বছর পর্যন্ত সেটা বেড়ে ৬.৯২ লাখ টাকা পর্যন্ত পৌঁছে যাবে, অর্থাৎ বছরে ৬.৯২ লাখ টাকা পাবেন অগ্নিবীররা।

বছর১ম বর্ষ২য় বছর৩য় বছর৪র্থ বর্ষ
মাসিক বেতন₹ ৩০০০০₹ ৩৩০০০₹ ৩৬৫০০₹ ৪০০০০
হাতে (৭০%)₹ ২১০০০₹ ২৩১০০₹ ২৫৫৮০₹ ২৮০০০
অগ্নিবীর কর্পাস ফান্ড (৩০%)₹ ৯০০০₹ ৯৯০০₹ ১০৯৫০₹ ১২০০০
সরকার দ্বারা কর্পাস ফান্ডে অবদান।₹ ৯০০০₹ ৯৯০০₹ ১০৯৫০₹ ১২০০০

এছাড়াও অন্যান্য রিস্ক আর হার্ডশিপ ও পাওয়া যাবে। চার বছরের চাকরির পর যুবকদের ১১.৭১ লাখ টাকা পর্যন্ত সেবা নিধি দেওয়া হবে, এর উপরে কোন রকম ট্যাক্স লাগানো হবে না।

এই সিদ্ধান্ত কেন করা হয়েছে ?

  • এক্ষেত্রে প্রথমত দেশের জন্য কিছু করা অথবা দেশের সেবা করার চিন্তাভাবনা রাখা যুবকরা একটা সুবর্ণ সুযোগ পাবেন।
  • সেনাতে short-term আর long-term চাকরি করার সুযোগ পাওয়া যাবে।
  • তিনজন সেনাদের মধ্যে যুবকরাও ভাগীদার হতে পারবেন।

চার বছর পর এই চাকরি থেকে এবং দায়িত্ব থেকে মুক্ত করে দেওয়া হবে সৈনিকদের: 

এই যোজনা অনুসারে চার বছরের জন্য যুবকদের অগ্নিবীর সেনাতে ভর্তি করা হবে, তাছাড়া চার বছর পর বেশিরভাগ জওয়ানকে তাদের দায়িত্ব থেকে মুক্ত করে দেওয়া হবে।

Agneepath Recruitment Scheme Indian Army
Agneepath Recruitment Scheme Indian Army – image credit: indianarmy.nic.in

চার বছরের পর যে সমস্ত যুবকদের সেনা থেকে, চাকরি থেকে মুক্ত করা হবে, তাদের অন্য কোন জায়গায় চাকরি পাইয়ে দেওয়ার ও একটা সক্রিয় ভূমিকা পালন করবে এই সেনা।

সেনাতে যদি কেউ চার বছর কাজ করেন তাহলে তার প্রোফাইল খুবই মজবুত হয়ে যাবে। আর প্রতিটি কোম্পানি এমন যুবকদের হায়ার করার ক্ষেত্রে আগ্রহ প্রকাশ করবে।

২৫% সৈনিক চাকরি জারি রাখতে পারবেন: 

এছাড়াও সেনাতে ২৫% জওয়ান তাদের চাকরি জারি রাখতে পারবেন, অর্থাৎ তারা চার বছরের পরেও সেখানে চাকরি করতে পারবেন। এছাড়া এটা তখনই সম্ভব হবে যদি সেই সময় সেনাতে ভর্তি না হয়ে থাকে, এই প্রোজেক্টের ক্ষেত্রে সেনাদের কোটি কোটি টাকা সেভও হতে পারে। একদিকে যেমন পেনশন কম লোকেদের দিতে হবে, তো অন্যদিকে বেতন তেও অনেকটাই সেভ হবে।

তো এই স্কিম আশা করি তাদের খুবই ভালো লেগেছে যারা দেশের জন্য কিছু করতে চান। আর অন্য দিকে খুবই কম সময়ের জন্য আপনি সেই স্বপ্ন পূরণ করতে পারবেন। তার সাথে সাথে বেতনটাও কিন্তু অনেকটাই আকর্ষণীয়।

আর যদি ভালো ভাবে চার বছর পর্যন্ত এই চাকরিটা করে নিতে পারেন তাহলে তো আপনার জীবন বদলে যেতে বেশিদিন সময় নেবে না। অন্য জায়গায় চাকরি পেতে আপনার অনেকখানি সুবিধা হবে আর আপনার প্রোফাইল কতখানি স্ট্রং হবে তা তো আপনি আন্দাজ করতেই পারছেন।

HomeClick here
Official WebsiteClick here

Leave a Comment